ভৈরবে কাঠুরিয়াকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে হত্যা

0
826

এম.আর রুবেল, ভৈরব (কিশোরগঞ্জ) :কিশোরগঞ্জের ভৈরবের শিমুলকান্দিতে সেলিম মিয়া (৪০) নামে এক কাঠুরিয়াকে বাড়ি থেকে মুঠোফোনে ডেকে নিয়ে জবাই করে হত্যা করেছে দূর্বৃত্তরা।
শনিবার সকালে স্থানীয়রা লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ উপজেলার শ্রীনগর ইউনিয়নের তেয়ারীরচর এলাকার একটি খালের পাড় থেকে নিহতের লাশ উদ্ধার করে।
৪ সন্তানের জনক নিহত সেলিম একই উপজেলা শিমুলকান্দি গ্রামের আলগা বাড়ির মৃত ধন মিয়ার ছেলে। সে পেশায় একজন কাঠুরিয়া।

তার স্ত্রী শিল্পী বেগম জানান, আজ ভোর রাতে ফজরের আযানের পরপর তার স্বামী সেলিম মিয়ার মুঠোফোনে একটি ফোন আসে। তখন তাকে জিজ্ঞাসা করলে সে স্ত্রীকে জানায় পার্শ্ববর্তী ইউনিয়নের আসাদ মিয়া ফোনে দেয় বাগে যেতে। ফোন পেয়ে তখন সে ঘর থেকে বেরিয়ে যায়। দেরি হতে দেখে স্ত্রী সকাল সাড়ে ৬ টার দিকে তার স্বামীর মোবাইলে ফোন দিয়ে ফোনটি বন্ধ পায়। তখন ভৈরবে কাজ করে তার বড় ছেলে ইমরানকে ফোন বন্ধের বিয়ষটি জানায়। সকাল ৭টার দিকে তার ভাসুরের ছেলে কাজল লোকমুখে শুনে এসে চাচীকে জানায় শ্রীনগর ইউনিয়নের তেয়ারিচরের খালে তার চাচা সেলিমের লাশ পড়ে থাকার কথা। পরিবারের লোকজনের দাবি, ঘর থেকে ফোনে ডেকে নিয়ে পরিকল্পিতভাবে এ হত্যাকান্ড ঘটানো হয়েছে। নিহতের স্ত্রী স্বপ্না বেগম বাদি হয়ে ভৈরব থানায় মামলা করার প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে সাংবাদিকদের জানান।

ভৈরব থানার ওসি তদন্ত মো: বাহালুল খান বাহার জানান, আজ সকালে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে হাত-পা বাধাঁ অবস্থায় গলাকাটা লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। তার গলাকাটা সহ দু’পা ও শরীরে বিভিন্ন স্থানে একাধিক ধারালো অস্ত্রের আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। ময়না তদন্তের জন্য কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এ বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে