পঞ্চগড়ে ইউপি চেয়ারম্যানের নানামুখী অনিয়মের অভিযোগ

0
294

সুকুমার বাবু দাস,পঞ্চগড় প্রতিনিধি:
পঞ্চড়ের আটোয়ারী উপজেলার এক ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ভিজিডি চাল বিতরণে চালবাজি এবং সরকারি গাছ লুটপাটসহ নানামুখী অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া গেছে।
তার অনিয়মের চিত্র তুলে ধরে ইতোমধ্যে বিভিন্ন গণমাধ্যমে একাধিকবার সংবাদ প্রকাশ হয়েছে।
অভিযুক্ত ওই ইউপি চেয়ারম্যানের নাম ওমর আলী। তিনি উপজেলার মির্জাপুর ইউনিয়ন পরিষদে দায়িত্বরত।
সূত্র জানায়, সম্প্রতি ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে হত-দরিদ্র উপকারভোগিদের মাঝে ভিজিডি চাল বিতরণে নিয়মবহির্ভূত ভাবে অর্থগ্রহণ করেছেন তিনি। খাদ্যগুদাম থেকে চাল উত্তোলনে অতিরিক্ত খরচের ভাউচার দেখিয়ে উপকারভোগিদের কাছ থেকে প্রায় চার হাজার টাকা নিজের পকেটে ঢুকিয়েছেন।
গত ১৭ মে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ইউনিয়নের মোট ৩৭৪ জন উপকারভোগির কাছ থেকে জনপ্রতি ১০ টাকা করে মোট তিন হাজার ৭৪০ টাকা উত্তোল করেন ইউপি সচীব। চেয়ারম্যানের নির্দেশেই এ টাকা ওঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন সচীব।
এ বিষয়ে জানতে চাইলে অভিযুক্ত ইউপি চেয়ারম্যান ওমর আলী বলেন, খাদ্যগুদাম থেকে চাল উত্তোলনের সময় প্রতি টনে ৮০০ টকা খরচ হয়। এজন্য প্রতি জনের কাছে ১০ টাকা করে নিচ্ছি।
অন্য প্রসঙ্গে চেয়ারম্যান বলেন, ঈদ উপলক্ষে অফিসের কিছু কর্মচারী এই টাকা টা নিয়েছে।
এর আগে গত ১০ মে ইউনিয়নের পাটশিরি বাজার সংলগ্ন লক্ষীপুর গ্রামের সরকারি রাস্তা থেকে প্রায় লক্ষাধিক টাকা মূল্যের ছয়টি ইউক্লিপটাস গাছ কর্তন করা হয়। যার নির্দেশ ছিলো ইউপি চেয়ারম্যান ওমর আলীর।
এছাড়াও তার বিরুদ্ধে বাল্যবিয়েসহ নানান সামাজিক অপরাধের অভিযোগে রয়েছে। ইতোপূর্বে তিনি বাল্যবিয়ের নেতৃত্ব দিয়ে সাময়িক বরখাস্তও হয়েছেন। এছাড়াও তার বিরুদ্ধে নানা অনিয়মের সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে সংবাদকর্মীদের ওপর চড়াও হয়ে অকথ্য ভাষায় গালমন্দ করেছে এই ইউপি চেয়ারম্যান ওমর আলী। ভিজিডি চাল নিয়ে চালবাজির বিষয়
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শারমিন সুলতানা বলেন, ঘটনার বিষয় আমি জানতে পেরেছি, বিষয়টা আমি আজকে কথা বলে পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

Leave a Reply