গুরুদাসপুরে ম্যাজিস্ট্রেট আসার খবরে পালিয়ে গেল বর পক্ষ

0
744

গুরুদাসপুর (নাটোর) প্রতিনিধি.
নাটোরের গুরুদাসপুর উপজেলার ধারাবারিষা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রী
বিনা খাতুন। বিয়ের বয়স না হতেই পিতা নোমান মুন্সি বিনাকে বধূসাজে সাজিয়েছেন।
খাবার পরিবেশন শেষে বর পক্ষ কনেকে নিয়ে যাওয়ার জন্য অপেক্ষা করছিলেন। ঠিক সেই সময়
নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোহাম্মদ নাহিদ হাসান খান পুলিশ
নিয়ে ওই বাল্যবিয়ে বন্ধ করতে ঘটনাস্থলে যান। কিন্তু ম্যাজিস্ট্রেটের আসার খবর ছড়িয়ে পড়ার
সঙ্গে সঙ্গে দৌড়ে পালিয়ে যায় বর পক্ষ।
নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট বলেন, মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৭টার দিকে একটি ফোন আসে। ফোনে
ধারাবারিষার মুন্সিপাড়ায় একটি বাল্যবিয়ের খবর জানানো হয়। পরে রাত সাড়ে ৮টার দিকে
সেখানে গিয়ে বাল্যবিয়েটি বন্ধ করে ১৮ বছর বয়স না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দেবেন না মর্মে
কনের পিতা নোমানমুন্সির কাছ থেকে মুচলেকা নেওয়া হয়েছে।

 

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে