লক্ষ্মীপুরে নিজের রান্নাঘরে নিজের আগুন!

0
662

লক্ষ্মীপুর জেলা প্রতিনিধি: লক্ষীপুরের চররুহিতা ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ড চরমন্ডল গ্রামে জমিজমা বিরোধের জের ধরে চলমান মোকদ্দমা ও অপর আরেকটি মামলা তদন্তাধীন রিপোর্টে হেরে যাওয়ার ভয়ে নিজের রান্নাঘরে নিজেই আগুন দিয়ে প্রতিপক্ষকে ফাঁসানোর চেষ্টা করছেন হায়দার আলী নামক এক ব্যক্তি।এমনই অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জানা গেছে টুটিয়াদের নতুন বাড়ির মৃত মজিবুল হকের ছেলে হায়দার আলীর সাথে একই এলাকার নূর মোহাম্মদের ছেলে আলী আহমদের সাথে দীর্ঘদিন ধরে জমি জমা বিষয়ক মামলা-মোকদ্দমা চলে আসছিল। আলী আহমদকে হয়রানি করার হীন উদ্দেশ্য নিয়ে বিভিন্ন সময় মিথ্যা মোকদ্দমা করে হায়দার আলী। 2015 সালে হায়দার আলী লোকজন দিয়ে আলী আহমদের ঘরবাড়ি ভাঙচুর করে বলে জানান, যার মামলা নং সিআর 1013/ 2015.। শুধু তাই নয় হায়দার আলী উদ্দেশ্যপ্রণোদিত হয়ে আলী আহমদের খাস দখলীয় জমির জমা খারিজ করেন। যার মামলা নং 2440। পরে আদালতে এ মামলা বাতিল হয়ে যায়।উপায়হীন হয়ে হায়দার আলী অপর আরেকটি জমির জমা খারিজ করলে( যার নং 40 07) তাও বাতিল হয়ে।

বর্তমানে আলী আহমদ এর লক্ষীপুর আদালতে দেওয়ানী মামলা (যার নং 102) চলমান বলে তিনি জানান। হায়দার আলীর শক্তি প্রদর্শনের কারণে ও লুটপাট করার ভয়ে আলী আহমদ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে অভিযোগ দায়ের করেন। তারই প্রেক্ষিতে লক্ষ্মীপুর সদর থানার তদন্তাধীন রয়েছে। যেকোনো সময় রিপোর্ট প্রকাশ হবে।

হায়দার আলীর নিজের দোষ ঢাকতে নিজের নাক কেটে অপরের যাত্রা ভঙ্গ করার মত ঘটনা ঘটিয়েছে। সে মামলা তদন্তাধীন রিপোর্ট থেকে নিস্তার পাওয়ার জন্যই নিজের ঘরে নিজেই আগুন দিয়েছে বলে মনে করেন আলী আহমদ।
শাহ আলম পাটোয়ারী (50) সিরাজ উল্লাহ পাটোয়ারী, আবুল কাশেম পাটোয়ারী (48) মোজাম্মেল হোসেন চৌধুরী টিপু ও টিপু সুলতান নামের স্থানীয় গণ্যমান্যরা বলেন হায়দার আলী একজন প্রতারক, মামলাবাজ। সে প্রতিপক্ষকে ফাঁসানোর হীন উদ্দেশ্য নিয়ে নিজের এক চালা রান্নাঘরে নিজেই আগুন দিয়েছে। এযাবৎ আলী আহমদের ১৫ লাখ টাকার ক্ষতি সাধন করে বলে আলী আহমদ এ প্রতিবেদককে জানিয়েছেন।

এ বিষয়ে হায়দার আলী বলেন -আমার সাথে ২০ বছর ধরে জমিজমা বিষয়ক মামলা মোকদ্দমা চলে আসছিল। ৪ মামলার রায় আমি পেয়েছি। আরো একটা মামলা চলমান আদালতে। এরপর আলী আআহম্মদ আমাকে হয়রানি করার উদ্দেশ্যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় অভিযোগ দায়ের করেন। আমার রান্নাঘরে আগুন দিয়ে সব জ্বালিয়ে দেন।

এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে